মির্জাগঞ্জে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯ | ৮ কার্তিক ১৪২৬

মির্জাগঞ্জে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ৪:৩৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯

print
মির্জাগঞ্জে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জে উৎকোচের টাকা ফেরত চাওয়ায় এক হতদরিদ্র রিকশা চালককে শারীরিকভাবে নির্যাতনের ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় ইউপি সদস্যসহ ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

রোববার মির্জাগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আহত রিকশাচালক মো. দুলাল মুসুল্লী বাদী হয়ে উপজেলার আমড়াগাছিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওর্য়াডের ইউপি সদস্য মো. সোহেল হাওলাদার এবং তার দুই সহযোগী চাঁনমিয়া হাওলাদার ও মো. শিপলু মুছুল্লীকে আসামি করে এ মামলাটি দায়ের করেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে মির্জাগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে বিচারক আসিফ আলাহী আসামিদের বিরূদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আমড়াগাছিয়া ইউনিয়নের শ্রীনগর গ্রামের বাসিন্দা মো. দুলাল মুসুল্লী তার স্ত্রীর নাম ভিজিডি তালিকায় অর্ন্তভুক্ত করার জন্য ওই ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. সোহেল হাওলাদারের কাছে ৩ হাজার টাকা উৎকোচ দেন। টাকা দেয়ার ৬ মাস অতিবাহিত হলেও ভিজিডি তালিকায় তার স্ত্রীর নাম অর্ন্তভুক্ত না হওয়ায় মহিষকাটা বাজারে থাকা অবস্থায় গত ১৭ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় দুলাল মুসুল্লী ইউপি সদস্যের কাছে টাকা ফেরত চাইলে ক্ষিপ্ত হয়ে ইউপি সদস্য ও তার দুই সহযোগী চাঁনমিয়া হাওলাদার এবং শিপলু মুসুল্লী পিটিয়ে রিকশাচালক দুলাল মুসুল্লীকে গুরুতর জখম করে। পরে স্থানীয়রা দুলাল মুসুল্লীকে উদ্ধার করে মির্জাগঞ্জ হাসপাতালে ভর্তি করেন।