শিকলবন্দি কিশোরী

ঢাকা, সোমবার, ১৯ আগস্ট ২০১৯ | ৪ ভাদ্র ১৪২৬

শিকলবন্দি কিশোরী

বামনা (বরগুনা) প্রতিনিধি ৬:৪৫ অপরাহ্ণ, আগস্ট ০২, ২০১৯

print
শিকলবন্দি কিশোরী

হাফছা আক্তার নামে ১৭ বছরের এক কিশোরীকে গত তিন দিন ধরে শিকল দিয়ে পা বেঁধে রেখে অমানসিক নির্যাতন চালিয়েছে তার নানি, খালা ও মামাসহ অন্য আত্মীয়রা। ঘটনাটি ঘটেছে বরগুনার বামনা উপজেলার ডৌয়াতলা ইউনিয়নের দক্ষিণ ভাইজোড়া গ্রামে। নির্যাতনের শিকার ওই কিশোরী পাথরঘাটা উপজেলার লেমুয়া গ্রামের আবুল হোসেনের মেয়ে।

নির্যাতনের শিকার ওই কিশোরী জানায়, স্থানীয় এক যুবকের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক হয়। এটা পরিবারের লোকজন মানতে রাজি নয়। গত রোববার ওই ছেলের সঙ্গে পালানোর চেষ্টা করে সে। বিষয়টি বামনা উপজেলার ডৌয়াতলা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান জানতে পেরে তাদের বিয়ে পড়ানোর আশ্বাস দেন।

এতে তারা পালানোর সিদ্ধান্ত বাতিল করে চেয়ারম্যানের কাছে আসে। তার মা ও বাবা এলাকায় না থাকায় চেয়ারম্যান দক্ষিণ ভাইজোড়া গ্রামে তার নানি হাসিনা বেগম ও খালা হনুফা বেগমের জিম্মায় দেন। কিন্তু তারা তিন ধরে শিকল দিয়ে বেঁধে রেখে নির্যাতন চালায়।

কিশোরীর মা নূরজাহান বেগম বলেন, ছেলেটি আগে একটি বিয়ে করেছে। তাই ওর সঙ্গে আমার মেয়েকে কিছুতেই বিয়ে দেব না। তাতে যদি ওকে কেটে ভাসিয়ে দিতে হয় তাই দেব।