Warning: mysql_fetch_array() expects parameter 1 to be resource, boolean given in /home/www/kholakagojbd.com/popular.php on line 70
রাস্তা কেটে চাষাবাদ, ভোগান্তি

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ | ১২ আশ্বিন ১৪২৯

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

রাস্তা কেটে চাষাবাদ, ভোগান্তি

সোলায়মান পিন্টু, কলাপাড়া (পটুয়াখালী)
🕐 ৭:১৭ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৫, ২০২২

রাস্তা কেটে চাষাবাদ, ভোগান্তি

আদালতের নির্দেশ উপেক্ষা করে চলাচলের রাস্তা কেটে চাষাবাদ করায় বিপাকে পড়েছে পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার খাজুরা গ্রামের স্কুলগামী ছাত্র-ছাত্রীসহ সাধারণ মানুষ। এখন রাস্তার অভাবে বাড়ি থেকে বেড় হতে পারছে না এলাকাবাসীরা। ভোগান্তিতে পড়েছে স্কুলগামী ছাত্র-ছাত্রীরাও।

এলাকাবাসীরা এব্যাপারে বিভিন্ন জনপ্রতিনিধিদের কাছে ধর্না দিয়ে কোন সুফল না পেয়ে আদালতের দ্বারস্থ হয়। এরপর আদালত রাস্তা কেটে চাষাবাদ না করার নিদের্শনা দেয়। তাও আমলে নেয়নি ভূলে বিএস জরিপে অন্তর্ভূক্ত হওয়া জমির মালিক দাবিদার সেরাজ তালুকদারসহ তার স্বজনরা।

জানা যায়, কলাপাড়া উপজেলার জে এল ৩৪ নং লতাচাপলী মৌজার হাল ১৫৯৫ নং খতিয়ানের হাল ৪১৩৪/৪১৭৩ নং দাগের এক একর ৫০ শতাংশ জমির ক্রয় সূত্রে মালিক আবুল কাশেম ব্যাপারী। যার দলিল নং ৫০৩৩, তারিখ ২৮ ডিসেম্বর ২০০৫। কিন্তু বিএস জরিপে জমির মালিক আবুল কাশেম ব্যাপারীর নামে বিএস ৫৭৮ নং খতিয়ানে মাত্র এক একর চল্লিশ শতাংশ জমি রেকর্ড হয়। বাকি ১০ শতাংশ জমি ভূল বসত পাশ্ববর্তী জমির মালিক সেরাজ তালুকদারের নামে রেকর্ড হয়। এই ভূল বসত জমির রেকর্ড হওয়ায় সেরাজ তালুকদার ওই জমির মালিকানা দাবি করে চাষাবাদ করার উদ্যোগ গ্রহন করে।

খাজুরা গ্রামের হাজেরা বেগম (৪০) বেগম বলেন, মাটির রাস্তা হলেও এ রাস্তাটি গ্রামবাসী দীর্ঘ দিন ধরে ব্যবহার করছে। খাজুরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীরা এ রাস্তা দিয়ে চলাচল করে। রাস্তাটি কেটে ফেলায় এলাকার ছেলে মেয়েরা স্কুলে যেতে পারছে না।

এ ব্যাপারে সেরাজ তালুকদারের সাথে মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে সে মোবাইল রিসিভ করেনি।

কুয়াকাটা পৌরসভার মেয়র মো.আনোয়ার হোসেন হাওলাদার বলেন, চলাচলের রাস্তা কেটে চাষাবাদ করার কোনো সুযোগ নেই। এ ব্যাপারে আমার কাছে কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে বিষয়টি দেখবো।

 
Electronic Paper