পিরোজপুরে হত্যা মামলায় দুই ভাইয়ের যাবজ্জীবন

ঢাকা, শনিবার, ১৩ আগস্ট ২০২২ | ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

পিরোজপুরে হত্যা মামলায় দুই ভাইয়ের যাবজ্জীবন

আরিফ মোস্তফা, পিরোজপুর
🕐 ৮:০৪ অপরাহ্ণ, জুন ২০, ২০২২

পিরোজপুরে হত্যা মামলায় দুই ভাইয়ের যাবজ্জীবন

পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি উপজেলায় জাকির হোসেন (২২) নামের এক যুবককে হত্যার দায়ে বাদশা শেখ (৫০) ও তার ভাই কাইউম শেখ (৪৫)কে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছে পিরোজপুরের জেলা ও দায়রা জজ আদালত।

সোমবার জেলা দায়রা জজ আদালতের বিচারক মুহা. মুহিদুজ্জামান এ দন্ডদেন। দন্ডপ্রাপ্ত দুইভাই উপজেলার সোহাগদল গ্রামের মৃত আব্দুল মান্নান শেখের ছেলে।পিরোজপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি খান মো. আলাউদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আদালতের নথি সূত্রে জানা যায়, স্বরূপকাঠি উপজেলার সোহাগদল গ্রামের আব্দুর রশিদের বাড়ির সীমানা নিয়ে তার চাচাতো ভাই বাদশা শেখের পরিবারের সাথে দীর্ঘদিনের বিরোধ ছিল। ২০১২ সালের ৩০ অক্টোবর বিকেলে স্থানীয় কামালের চায়ের দোকানে বসে বিরোধের জমি নিয়ে সালিস হয়। সালিস চলাকালে আব্দুর রশিদের ছেলে জাকির হোসেনের সঙ্গে আসামিদের ঝগড়া হয়। এ সময় আসামিরা আব্দুর রশিদ ও তার তিন ছেলে জাকির হোসেন, মো. সুমন ও মামুন হোসেন কে মারপিট করেন। এ সময় লাঠির আঘাতে জাকির হোসেন মারাত্মক আহত হন।

গুরুতর আহত জাকির হোসেন কে উদ্ধার করে স্বরুপকাঠী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। এরপর চিকিৎসকের পরামর্শে তাকে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজে স্থানান্তর করা হয়। পরদিন ৩১ অক্টোবর জাকির হোসেনেকে উন্নত চিকিৎসার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ^বিদ্যালয় হাসপাতালে পাঠানো হয়।

সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১ নভেম্বর দুপুরে সে মারা যান। ২ নভেম্বর নিহত জাকির হোসেনের বাবা আব্দুর রশিদ মিয়া বাদী হয়ে বাদশা শেখকে প্রধান আসামি করে ১২ জানের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করেন। ২০১৪ সালের ৩১ অক্টোবর মামলাটি তদন্ত শেষে পুলিশ আদালতে অভিযোগ পত্র দেন। সাক্ষ্য প্রমানে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় আদালত এ দন্ডদেন।

 

 
Electronic Paper