চোর ও চুরি

ঢাকা, সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১ | ৩ কার্তিক ১৪২৮

Khola Kagoj BD
Khule Dey Apnar chokh

চোর ও চুরি

অভিজিত বড়ুয়া বিভু
🕐 ২:৫৫ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২১, ২০২১

চোর ও চুরি

চারদিক চোর বাটপারে ভরে গেছে।
-ভরে গেছে? ভরে গেছে! তুই না!
-কী! আমি কী! আপনি যে আমাকে তুই-তোরাকি করেন। ছেলেমেয়েরা শুনে কী ভাবে বলেন তো। ওদের বন্ধুবান্ধবরা বেড়াতে এসে যদি এই ব্যবহার শুনে...!

-উম! কত শিক্ষিত ডিগ্রিধারীকে দেখেছি তুই-তোরাকি করতে। আচ্ছা চোরের কথা কী যেন বললি! কাকে তুই চোর বলছিস। তুই তো নিজেই একটা চোর। সকার সকাল সবাই ভগবানের নাম নেয়। আর তুই কিনা বাড়ি বড়ি চুরি করতে যাস।
-মানে! অ ভগবান! আমি আবার কী চুরি করলাম।
-এই কথায় কথায় ভগবান ভগবান করিস না তো। যারা ভগবান ভগবান করে তাদের কোনো না কোনো ক্ষেত্রে গলদ থাকে। তার মধ্যে তুই একজন।
-আপনি! আপনি না মুখ সামলে কথা বলেন। আমাকে চোর বলছেন। পাড়াপড়শিরা শুনলে তো ইজ্জত যাবে।
-সময় থাকতে ভালো হয়ে যা।
-অযথা বাড়াবাড়ি করলে কিন্তু...।
-অই তুই চোর না? সকালবেলা পাড়ায় পাড়ায় বাড়ি বাড়ি গিয়ে ফুল চুরি করিস না? চুরি করা ফুল এনে যখন পূজা দিস তখন কি তোর পুণ্য হয় রে? চোরের ঘরের চোর।
-আপনি কিন্তু...।
-অই। এখন হাসিস কেন? মানুষ ছোটবেলায় না বুঝে এ-বাড়ি ও-বাড়ি গিয়ে না বলে ফুল নিয়ে আসত। তোর তো এখন বোঝার বয়স হয়েছে। সকাল বিকাল যে পাঁচটা নীতি মুখস্থ বলে যাস। পাঁচটা নীতির মধ্যে দ্বিতীয় নীতিতে পরিষ্কারভাবে উল্লেখ করা আছে পরের কোনো জিনিস বিনা অনুমতিতে ধরা থেকে বিরত থাকিব। আর তুই কিনা অন্যকে চোর বলিস? কথায় বলে, চোরে শোনে না ধর্মের কাহিনি। আপাতত তুই আমার কথা মেনে চলিস। নইলে পদে পদে বিপদে পড়বি।
-আপনি না আসলে...!
-কী! যথার্থ উত্তর দিলাম? জ্ঞানী এই তো!

ইছামতী, রাঙ্গুনিয়া চট্টগ্রাম

 
Electronic Paper