গুরুদাসপুরে আউশ ধান চাষের ধুম

ঢাকা, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ৩১ ভাদ্র ১৪২৬

গুরুদাসপুরে আউশ ধান চাষের ধুম

গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি ৮:০৮ অপরাহ্ণ, জুন ১৭, ২০১৯

print
গুরুদাসপুরে আউশ ধান চাষের ধুম

আষাঢ়ের বৃষ্টিতে ক্ষেতে পানি জমেছে। নরম মাটির কণা চাষ দিয়ে উপযোগী করছে নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার কৃষক। চলছে রোপা আউশ ধানের চারা রোপণ। অনেক মাঠে পাট ও ব্রি-৫৫-২৮ জাতের ধান থাকায় একসঙ্গে রোপণ করতে পারছে না।

বিয়াঘাট ইউনিয়নের গোপীনাথপুর গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক, আসকান ও হান্নান ইসলামসহ কমপক্ষে ১৫ জন কৃষকের সঙ্গে বলে জানা গেছে, তাদের মাঠে গম-ভুট্টা ও ব্রি-২৯ জাতের ধান ছিল। বৃষ্টিপাত না থাকায় সেচ দিয়ে আবাদ করেছিলেন তারা।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আব্দুল করিম জানান, অন্য আবাদের চেয়ে এ আবাদে সেচ-সার-কীটনাশক কম দিতে হয়। এতে খরচ কমে। উৎপাদন বাড়ায় লাভবান হন কৃষক।

কৃষকদের তথ্য মতে, এক বিঘা জমিতে রোপা আউশ ধান করতে বীজ, জমি প্রস্তুত, শ্রমিক এবং রোপণ বাবদ খরচ হচ্ছে গড়ে সাত হাজার টাকা। তবে অপেক্ষাকৃত নিচু জমিতে খরচ হয় পাঁচ হাজার টাকা। তবে মাঝে মাঝে বৃষ্টিপাত হলে চাষাবাদ সহজ হতো।

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ছয়টি ইউনিয়নে দুই হাজার ১০০ হেক্টর জমিতে রোপা আউশ ধানের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে।