বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮
শহরেই ঘর ভাঙছে বেশি
নিজস্ব প্রতিবেদক
Published : Tuesday, 13 February, 2018 at 11:14 PM
শহরেই ঘর ভাঙছে বেশি
গ্রামাঞ্চলের চেয়ে শহরেই বিবাহ-বিচ্ছেদের হার বেশি। বিশেষ করে বিভাগীয় শহরগুলোর মধ্যে বিবাহ-বিচ্ছেদের হার দিন দিন বাড়ছে। এ সূচকে শহরগুলোর মধ্যে এগিয়ে আছে রাজশাহী। এখানে বিবাহ-বিচ্ছেদের হার প্রতি হাজারে ১ দশমিক শূন্য ৯ জন। এর পরের তালিকায় রয়েছে বিভাগীয় শহর খুলনা।
পরিসংখ্যান ব্যুরোর সূত্রে জানা গেছে, রাজধানী ঢাকায় যতসংখ্যক মানুষ বিবাহ-বিচ্ছেদ ঘটান তার সামান্যই সিটি করপোরেশনকে অবহিত করা হয়। একই চিত্র দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলেও। ফলে যে তথ্য প্রাতিষ্ঠানিক জরিপ থেকে উঠে আসে তার চেয়ে ভয়াবহ প্রকৃত চিত্র। এসব চিত্র পাওয়া গেছে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর বিভিন্ন পরিসংখ্যানে।
সারা দেশের পরিসংখ্যান পাওয়া না গেলেও রাজধানী ঢাকার বিবাহ- বিচ্ছেদের পরিসংখ্যান পাওয়া গেছে গত বছর। সিটি করপোরেশন থেকেই এ তথ্য প্রকাশ করা হয়। সেখানে বলা হয়, ২০১০ সাল থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত ৬ বছরে ঢাকার দুই সিটিতে ৩০ হাজার ৮৫৫টি বিবাহ-বিচ্ছেদের ঘটনা ঘটেছে। এর মধ্যে মোট তালাকের ৬৮ দশমিক ১৯ শতাংশ দিচ্ছেন স্ত্রী এবং ৩৩ দশমিক ৪ শতাংশ দিচ্ছেন স্বামী। দুই সিটি করপোরেশনের প্রদত্ত তথ্য মতে, রাজধানী ঢাকায় প্রতিদিন ১৫ দম্পতির বিবাহ-বিচ্ছেদ ঘটছে। জানা গেছে, কেবল ঢাকা সিটি করপোরেশন এলাকাতেই প্রতিদিন গড়ে ৫০-৬০টির মতো বিচ্ছেদের আবেদন জমা পড়ে। প্রতিবছর এ হার বেড়েইে চলেছে।
গত বছর ডিসেম্বরে প্রকাশিত এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, ময়মনসিংহ জেলায় প্রতিদিন গড়ে প্রায় ১৫টি বিবাহ-বিচ্ছেদ হচ্ছে। সেখানে গ্রামের চেয়ে শহরে বিবাহ-বিচ্ছেদের পরিমাণই বেশি। সমীক্ষায় বলা হচ্ছে, গত বছরে ১৯ হাজার ৬৯২টি বিয়ে রেজিস্ট্রি হয়। বিবাহ-বিচ্ছেদ হয়েছে ৪ হাজার ৮০৮টি। ময়মনসিংহ সদরে গত এক বছরে বিবাহ-বিচ্ছেদ হয়েছে ২৬০টি। যা ছাড়িয়ে গেছে অতীতের সব রেকর্ড।
খুলনা মহানগরীর অবস্থাও প্রায় একই। পরিসংখ্যান থেকে জানা গেছে, গত সাড়ে পাঁচ বছরে খুলনা মহানগরীতে ৬ হাজার ৫৪৭ দম্পতির বৈবাহিক বন্ধন ছিন্ন হয়েছে। বিচ্ছেদের কারণ হিসেবে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন, যৌতুক, মনোমালিন্য, পারস্পরিক আস্থা ও নির্ভরশীলতার অভাব, ফেসবুকে ও মোবাইল ফোনে অযাচিত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়া, মাদকাসক্তি, বাড়তি অর্থনৈতিক চাহিদা প্রভৃতি কারণে খুলনা মহানগরীতে বাড়ছে বিবাহ-বিচ্ছেদের হার।
বন্দরনগরী চট্টগ্রামের চিত্রও একই রকম। ২০১৭ সালের মার্চ মাসে প্রকাশিত এক তথ্যে জানা যায়, ওই বছরের জানুয়ারি থেকে ফেব্রুয়ারি মাত্র দুই মাসে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনে (চসিক) বিবাহ-বিচ্ছেদের আবেদন জমা পড়ে ৭৬৩টি। অর্থাৎ প্রতি দুই ঘণ্টায় একটিরও বেশি আবেদন জমা পড়েছে সেখানে। অধিকাংশ বিবাহ-বিচ্ছেদ পারস্পরিক আস্থাহীনতা এবং নতুন সম্পর্কে জড়িয়ে যাওয়ার কারণে ঘটছে বলে মত দিয়েছে সংশ্লিষ্টরা। 



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: আহসান হাবীব
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত খোলাকাগজ ২০১৬
সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: বসতি হরাইজন এ্যাপার্টমেন্ট নং ১৮/বি, হাউজ-২১, রোড-১৭, বনানী বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১২১৩।
ফোন : +৮৮-০২-৯৮২২০২১, ৯৮২২০২৯, ৯৮২২০৩২, ৯৮২২০৩৬, ৯৮২২০৩৭, ফ্যাক্স: ৯৮২১১৯৩, ই-মেইল : kholakagojnews@gmail.com
Developed & Maintenance by i2soft
var _Hasync= _Hasync|| []; _Hasync.push(['Histats.start', '1,3452539,4,6,200,40,00010101']); _Hasync.push(['Histats.fasi', '1']); _Hasync.push(['Histats.track_hits', '']); (function() { var hs = document.createElement('script'); hs.type = 'text/javascript'; hs.async = true; hs.src = ('//s10.histats.com/js15_as.js'); (document.getElementsByTagName('head')[0] || document.getElementsByTagName('body')[0]).appendChild(hs); })();